তারাপীঠের রথযাত্রাকে ঘিরে অনেক অজানা ঘটনা



তারাপীঠের রথে অধিষ্ঠাত্রী থাকেন ‘মা তারা’। রবিবার যথাযোগ্য মর্যাদায় মা তারাকে ওই রথে বসিয়ে ঘোরানো হয় তারাপীঠ। ঐদিন মধ্যাহ্ন ভোগের পর বিকেল তিনটের সময় রীঁ মাকে গর্ভমন্দির থেকে বের করে, রথে প্রতিষ্ঠা করা হয়। মাকে রাজবেশে সাজিয়ে তুলে মায়ের রথযাত্রার আরম্ভ হয়। মন্দিরের প্রধান প্রবেশদ্বার থেকে শুরু হয়ে, দ্বারকা ব্রিজ সংলগ্ন বাসস্ট্যান্ড, তারাপীঠ থানা হয়ে পূর্বসাগর মোড় তারপর তিনমাথা মোড় হয়ে পুনরায় পূর্বসাগর মোড়ে এসে রথযাত্রার সমাপ্তি ঘটে।


 🎈 মাকে মূল মন্দিরে নিয়ে এসে শুরু হয় সন্ধ্যারতি। এবছরও একইভাবে এই বিশেষ দিনটিকে পালন করা হযেছে। মায়ের রথ থেকে ভক্তদের উদ্দেশে প্যাড়া, বাতাসা নকুলদানা ইত্যাদি মহাপ্রসাদ স্বরূপ বিতরণ করা হয়। হাজার হাজার পুর্ণার্থী রথের দড়িতে টান দেন। রথযাত্রা উপলক্ষে জিলিপি, পাঁপড় ভাজা, মাটির পুতুল, বেলুন ইত্যাদি বিক্রি হয়ে থাকে। তারাপীঠের স্থানীয় যারা, কাজের সূত্রে যারা বাইরে থাকেন তাঁরাও বাড়ি ফিরে আসেন মায়ের এই রথের টানে।


 ⏺️উল্টোরথের দিনেও একই ছবি দেখা যায় তারাপীঠে।





মূল ভাবনা, লেখা, তথ্য, ছবি-
      শ্রী কৌশিক মুখার্জী
(Priest, Tarapith Temple)


Tarapith. Powered by Blogger.